১৩ই আগস্ট, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ | ২৯শে শ্রাবণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ |

অভিশপ্ত খারেজি ফেরকার প্রাদুর্ভাব হচ্ছে ! সতর্ক থাকুন !

আল্লামা ইমাম হায়াত আলাইহি রাহমার লেখনী মোবারক থেকে নেওয়া……

হুশিয়ার ! সাবধান ! সুন্নীয়তকে ধ্বংস করার জন্য- নাস্তিক্যউদ্ভূত বস্তুবাদ এবং বাতিল সালাফি-ওহাবি-শিয়াবাদের সাথে আহলে সুন্নাত বা সুন্নী বেশে ঈমান বিনাশী দ্বীন ধ্বংসাত্মক

সুন্নী ছদ্মবেশী মোনাফেক খারেজিদের আলামত –

১) মহামহিম জাতে এলাহীর প্রত্যক্ষ নূর হিসেবে আল্লাহতাআলার হাবীব সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে স্বীকার করবে না এবং শানে রেসালাতে জাহেরী বস্তুবাদি দৃষ্টিতে বশর-ইনসান-জন্ম-মৃত্যু ইত্যাদি ঈমানহানিকর শব্দ ব্যবহার করবে। সত্যের উৎস পবিত্র নবী রাসুল আলাইহিমু সালামদের ভুলত্রুটি হতে পারে বলে জঘন্য কুফরী আকিদা রাখে।

২) আল্লাহতাআলার নির্দেশিত ঈমানী ফরজ ও সকল এবাদত কবুল হওয়ার অপরিহায্য শর্ত এবং শানে রেসালাত-হুব্বে রেসালাত-তাজিমে রেসালাতের প্রকাশ সালাতু সালামকে অবমাননা করে নফলেরও নিচে নিছক মোস্তাহাব হিসেবে প্রচার করে দ্বীনের প্রাণ হরণ ও দুশমনে রেসালাতদের সাথে একাকার হবে।

৩) ঈমানের অবিচ্ছেদ্য বিষয় মহামান্য খোলাফয়ে রাশেদীন রাদিআল্লাহু আনহুমের সবাইকে স্বীকার না করে বাতিল শিয়াবাদের মত কোন একজনকে স্বীকার দেখিয়ে অন্যান্য খোলাফায়ে রাশেদীনকে খলিফাতুর রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম হিসেবে অস্বীকার করবে। ঈমান দ্বীনের কেন্দ্র ও দলিল প্রাণপ্রিয় আহলে রাসুল – মহামান্য খোলাফায়ে রাশেদীন – মহান মকবুল সাহাবায়ে কেরাম রাদিআল্লাহু আনহুমের পবিত্র জামায়াতের অবমাননা করে তাঁদের সম্মিলিত জামায়াত ও সম্মিলিত এজমার খেলাফ বিষয়কে প্রধান্য দিয়ে দ্বীনকে বিকৃত করবে।

৪) কেবলমাত্র ফতহে মক্কার পূর্বের সংকটের সময়ে মহাত্যাগী উৎসর্গীকৃত মহান মকবুল সাহাবায়ে কেরাম রাদিআল্লাহু আনহুমকে আজামা দারাজাত বা জলিলুল কদর হিসেবে আল্লাহতাআলার ঘোষণা এবং পরবর্তি সুসময়ে ইসলামে আত্মসমর্পনকারী কাউকে জলিলুল কদর বলার বিরুদ্ধে আল্লাহতাআলার নিষেধাজ্ঞা (সুরা হাদিদ আয়াত শরীফ-১০) অমান্য করে পরবর্তীদেরকেও জলিলুল কদর হিসেবে চালিয়ে দ্বীন বিকৃত করবে।

৫) ঈমানের অবিচ্ছেদ্য অংশ প্রাণপ্রিয় আহলে রাসুল সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের প্রতি কোরআনুল করীমে আল্লাহতাআলার নির্দেশিত (সুরা-শোরা, আয়াত-২৩) শ্রদ্ধা ভালোবাসা অনুগত্যকে অজরুরী হালকাভাবে দেখাবে এবং তাঁদের পথের অনুসারী তথা প্রকৃত সুন্নীদেরকে বাতিল শিয়াবাদি কুফরি মিথ্যা অপবাদ দিয়ে ইসলামের আসল ধারা আহলে সুন্নাতকে রুখে দেয়ার চক্রান্ত করবে।

৬) অভিশপ্ত কাফের এজিদকে বিণা দলিলে কাফের মনে না করে মুসলিম হিসেবে চালিয়ে দিতে চাইবে এবং মুমিন দাবি করে কুফরি আড়াল করার জন্য দলিল চাইবে, যার উদ্দেশ্য আহলে বায়েতের শ্রদ্ধা-ভালোবাসা-আনুুগত্য ঈমানের বিষয় নয় ও আহলে বায়েত হকের দলিল নয় এবং তাঁদের বিপরীত পথে চলে ও তাঁদের শত্রু হয়ে এমনকি তাঁদেরকে হত্যা করেও ইসলাম হয় সাব্যস্ত করা, (নাউজুবিল্লাহ)।

৭) ইসলাম উৎখাতকারী অভিশপ্ত কাফের এজিদের অবৈধ রাষ্ট্রক্ষমতা ও স্বৈরদস্যুতা মুলুকিয়তকে বৈধ হিসেবে চালিয়ে দিতে চাইবে যার মূখ্য উদ্দেশ্য কলেমার চেতনা ও কাঠামো খেলাফত অস্বীকার ও উৎখাত করে বস্তুবাদি চেতনা ও কলেমার বিপরীত কাঠামো মুলুকিয়তকে হক সাব্যস্ত করা।

৮) সমগ্র মানবমন্ডলীর জন্য দয়াময় আল্লাহতাআলা ও তাঁর প্রিয়তম হাবীব সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম প্রদত্ত সর্বজনীন অধিকার-স্বাধীনতা-নিরাপত্তা-মর্যাদা-রিজিক- সম্পদের কাঠামো এবং সকল অপশক্তি থেকে সত্য ও মানবতার সুরক্ষা কাঠামো সর্বকল্যাণময় রাষ্ট্রব্যবস্থা ও বিশ্বব্যবস্থা খেলাফতে ইনসানিয়াত (authority of life & state & world of universal humanity) অস্বীকার ও বিরোধীতা করবে।

৯)কলেমা প্রদত্ত তাওহীদ রেসালাত ভিত্তিক মুমিনসত্তা ও বস্তুর উর্ধ্বে মানবসত্তা অস্বীকার করে বস্তুবাদি চেতনা ও বস্তুবাদি জাতিয়তাবাদের অনুসারী হবে এবং বিশেষভাবে আইয়ামে জাহেলিয়াতের বস্তুবাদি ভাবধারায় মা-বোনদের ঈমানী দায়িত্ব ও দ্বীনী কর্তব্য এবং মুমিন ও মানুষ হিসেবে জীবনের গতি-বিকাশ-শিক্ষা-মর্যাদা অস্বীকার করবে।

১০) ইসলামী রাষ্ট্র-কোরআন সুন্নাহ ভিত্তিক শাসন-শরীয়তী হুকুমত-খোদার আইন ইত্যাদি শব্দের আড়ালে ইসলামের মূল মহামান্য খোলাফায়ে রাশেদীনকে হত্যাকারী ও ইসলামের চরম দুষমন কুফরি খারেজি উগ্রবাদি জংগিবাদি সন্ত্রাসী অপরাজনীতি প্রতিষ্ঠার অপচেষ্টার মাধ্যমে ইসলামের নাম কুক্ষিগত ও ইসলামকে ধ্বংস করার চক্রান্ত করবে এবং এজন্য ইসলামের নির্দেশিত আসল রাজনৈতিক ব্যবস্থা খেলাফতে ইনসানিয়াত প্রতিরোধ করবে।

১১) ইসলাম বা আহলে সুন্নাতের নামে প্রতারণা করে অর্থ-পদ-ক্ষমতার অসৎ স্বার্থে বিকিয়ে আকিদা আদর্শ পরিপন্থি যে কোন বাতিলের সাথে একাকার জোটবদ্ধ হয়ে দ্বীন-মিল্লাত ও মানবতাকে বাতিল জালিম অপশক্তির পরাধীন দাস করে রাখার এবং কুফর জুলুমের মুলুকিয়ত কায়েম রাখার চক্রান্ত করবে।

১২) জ্ঞানগত ও আদর্শিক মোকাবেলায় ব্যর্থ হয়ে ইসলামের মূল ধারা আহলে সুন্নাত তথা হকের ধারকদের বিরুদ্ধে সব সময় নানাভাবে মিথ্যা অপবাদ রটিয়ে মানুষকে বিভ্রান্ত করে হকের ধারা রুদ্ধ করার চক্রান্ত করবে, হকের আপনদের মধ্যে পারস্পরিক হিংসা-বিদ্বেষ-বিভক্তি তৈরি করে গোমরাহী কয়েম রাখার চেষ্টা করবে এবং হকের ধারকদের উপর সব সময় সন্ত্রাসী হামলা চালিয়ে যাবে।

—— আল্লামা ইমাম হায়াত
( ইসলামের মূল ধারা আহলে সুন্নাত ওয়াল জামায়াতের প্রকৃত ধারার এ যুগের পূণরূজ্জীবনকারী এবং বিশ্ব সুন্নী আন্দোলনের প্রতিষ্ঠাতা ও বিশ্ব ইনসানিয়াত বিপ্লবের প্রবর্তক)

(Visited 1 times, 1 visits today)

আরও পড়ুন

মহান জাতীয় শহীদ দিবস শাহাদাতে কারবালা দিবসে ফেনীতে র‍্যালী
মুসলিম মিল্লাতের মহান জাতীয় শহীদ দিবস উপলক্ষে ওয়ার্ল্ড সুন্নী মুভমেন্টের সমাবেশ
মহররম ঈমানী শোক ও ঈমানী শপথের মাস, আনন্দ উদযাপনের নয় – আল্লামা ইমাম হায়াত
করোনায় সারাদেশে আরও ৭ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৯৯৮
বিদ্যুৎ ব্যবহারে সাশ্রয়ী হওয়ার আহ্বান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
পেপসির সঙ্গে বিষ খাইয়ে খুন, যুবকের যাবজ্জীবন
চাল আমদানির সুযোগ পাচ্ছে ১২৫ প্রতিষ্ঠান
এশিয়ান টিভির ফেনী জেলা প্রতিনিধি হলেন সাংবাদিক সোহাগ