২৭শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ | ১৪ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ |

চট্টগ্রামে প্রথমবারের মত ‘এমএনডি’ রোগীর শরীরে সফলভাবে পিইজি টিউব স্থাপন

বন্দরনগরীর সর্ববৃহৎ হাসপাতাল, এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রামে সম্প্রতি জটিল মোটর নিউরন ডিজিজ বা ‘এমএনডি’ রোগে আক্রান্ত রোগীর শরীরে সফলভাবে পিইজি টিউব স্থাপন সম্পন্ন হয়েছে। এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রাম-এর গ্যাস্ট্রোএন্ট্রোলজি বিভাগের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. এস এম আলী হায়দার’র তত্ত্বাবধায়নে চট্টগ্রামে প্রথমবারের মত এই পিইজি টিউব স্থাপন সম্পন্ন হয়েছে।

জেলার চাঁদগাও আবাসিকের ৬৬ বছর বয়সী হারুন-অর-রশিদ শারীরিক দুর্বলতা নিয়ে এভারকেয়ারে আসেন। হাসপাতালের ওপিডি’তে প্রাথমিক পর্যবেক্ষণের পর জানা যায়, বিগত ছয় মাস যাবত রোগী ঠিকমতো কথা বলতে ও খাবার/পানীয় গিলতে পারছেন না এবং হঠাৎ হঠাৎ শ্বাসকষ্টে ভুগছেন। এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রামের নিউরোলজি বিভাগের কনসালটেন্ট ডাঃ মোহাম্মদ নাজিম উদ্দিন এর তত্ত্বাবধানে পরবর্তীতে যাবতীয় পরীক্ষানিরীক্ষার পর রোগী মোটর নিউরন ডিজিজ’এ (এমএনডি) আক্রান্ত হয়েছেন বলে ডাক্তাররা নিশ্চিত হন। এই রোগের নির্দিষ্ট কোন চিকিৎসা ও প্রতিষেধক না থাকায় রোগীর খাদ্য গ্রহণ ও পর্যাপ্ত পুষ্টি নিশ্চিত করতে পিইজি টিউব স্থাপনের জন্য সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। অতঃপর এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রাম-এর গ্যাস্ট্রোএন্ট্রোলজি বিভাগের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. এস এম আলী হায়দার’র তত্ত্বাবধায়নে এবং রোগী ও স্বজনদের সম্মতিক্রমে রোগীর শরীরে কোন জটিলতা ছাড়াই সফলভাবে একটি পিইজি টিউব স্থাপন করা হয়।

রোগ ও চিকিৎসা সম্পর্কে এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রাম-এর গ্যাস্ট্রোএন্ট্রোলজি বিভাগের সিনিয়র কনসালটেন্ট ডা. এস এম আলী হায়দার জানান, “মোটর নিউরন ডিজিজ’র অন্যতম উপসর্গ হলো; খাবার গিলতে ও কথা বলতে কষ্ট হওয়া, মুখ থেকে লালা নিঃসৃত হওয়া এবং শ্বাসকষ্ট হওয়া। জনাব হারুন অর রশিদ বিগত ৬ মাস ধরে এসব সমস্যায় ভুগছেন এবং যখন আমাদের কাছে আনা হয়, তার শারীরিক অবস্থা জটিল ছিল। এই রোগের কোন চিকিৎসা এখনও আবিষ্কৃত হয়নি, নির্দিষ্ট কোন ঔষধও নেই। এমতাবস্থায় যেকোন সিদ্ধান্ত গ্রহণই কঠিন। তবে আমরা তার শরীরে পিইজি টিউব স্থাপনের সিদ্ধান্ত নেই, কারণ এটি শরীরে পর্যাপ্ত পুষ্টি সরবরাহে সক্ষম এবং কোন মেডিকেল এক্সপার্ট ছাড়াই ব্যবহার করা যায়। এটি ন্যাসোগ্যাস্ট্রিক ও অরোগ্যাসট্রিক টিউবের তুলনায় বেশি সহনশীল, সহজ এবং দীর্ঘদিন ব্যবহারযোগ্য। অতঃপর সকলের সম্মতিক্রমে আমরা এই চিকিৎসা সম্পন্ন করি। বর্তমানে রোগী সুস্থ আছেন।”

এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রাম-এর মেডিকেল সার্ভিসেস ডিপার্টমেন্টের মহাব্যবস্থাপক ডা. ফজলে আকবর বলেন, “রোগীদের সর্বোত্তম সেবা দানের লক্ষ্যে এভারকেয়ার হসপিটাল চট্টগ্রাম-এ আমরা সর্বোত্তম চিকিৎসা সরঞ্জাম ও দক্ষ চিকিৎসক দল নিয়ে সর্বদা প্রস্তুত থাকি। চট্টগ্রামে প্রথমবারের মত জটিল এমএনডি রোগে আক্রান্ত রোগীর শরীরে সফলভাবে পিইজি টিউব স্থাপন সম্পন্ন করেছি আমরা যা আমাদের জন্য অত্যন্ত বড় একটি সাফল্য।”

(Visited ৮ times, ১ visits today)

আরও পড়ুন

হযরত খাজাবাবা (রঃ) ও জামে আওলিয়া কেরামের পথ পূণরুদ্ধার সম্মেলন অনুষ্ঠিত
বীর মুক্তিযুদ্ধা আব্দুল আলিম এর সহধর্মীনি নুরজাহান বেগম আর নেই
ফজলে রাব্বীর আসনে নৌকার হাল ধরতে চান যারা
মহান জাতীয় শহীদ দিবস শাহাদাতে কারবালা দিবসে ফেনীতে র‍্যালী
এমপির বিরুদ্ধে উপজেলা চেয়ারম্যানকে কিল-ঘুষির অভিযোগ
বঙ্গবন্ধুর সমাধীস্থলে মুক্তিযোদ্ধা সন্তান সংসদ কেন্দ্রীয় কমান্ড কাউন্সিলের শ্রদ্ধাঞ্জলী
অসহায় মানুষের মাঝে মাংস বিতরণ করল ‘জীবন আলো’
নোয়াখালীতে প্রবাসীকে মারধর ও লুটপাটের অভিযোগ